বাগেরহাটে পুলিশ কনস্টেবল নিয়োগের নামে প্রতারণায় ভুয়া অধ্যাপক গ্রেফতার

Admin

অক্টোবর ২৮ ২০২১, ১৭:২২

বেত্রাবতী ডেস্ক।।ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক ও আইজিপির বন্ধু পরিচয়ে বাগেরহাটে পুলিশ কনস্টেবল পদে নিয়োগে প্রতারণা করতে গিয়ে স্বপন সিংহ (৪৫) নামের এক প্রতারক গ্রেফতার হয়েছে।

বাগেরহাট পুলিশ সুপারের নির্দেশে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ বরিশাল সদর থেকে স্বপন সিংহকে গ্রেফতার করে বাগেরহাট নিয়ে আসে।

এ ঘটনায় বাগেরহাটের পুলিশ সুপার কেএম আরিফুল হক বৃহস্পতিবার (২৮ অক্টোবর) বিকাল ৩টায় এক প্রেস ব্রিফিং করেছেন।

প্রেস ব্রিফিং এ বলা হয়, পটুয়াখালী জেলা মির্জাগঞ্জ থানার গাবুরা গ্রামের স্বপন সিংহ বরিশাল কোতায়ালির ২১ নং ওয়ার্ডে বটতলা জমিদার বাড়ির ৩য় তলায় ভাড়া থাকে।

স্বপন সিংহসহ তার আরো ৪ সহযোগী মিলে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীর শ্যালক ও আইজিপির বন্ধু পরিচয়ে বাগেরহাট জেলার ফকিরহাট উপজেলার সিংগাতি গ্রামের প্রান্ত শীল বাপ্পী (১৮) পুলিশ কনস্টেবল পদে চাকুরি দিবে বলে ১০ লাখ টাকায় চুক্তি করে।

চাকরির আবেদনে আইজিপির সীল ও স্বাক্ষর জাল করে বাপ্পীর মায়ের সাথে প্রতারণা করে। যা বাগেরহাট পুলিশ সুপারের দৃষ্টি গোচর হলে বিষয়টি ভুয়া বলে প্রতীয়মান হয়।

এ ঘটনায় বাপ্পীর মাতা যুথিকা শীল বাদী হয়ে স্বপন সিংহসহ তার সহযোগী ঝাল কাঠির বিষ্ণু বর্মন(২৪), খুলনা রুপসার সজল চক্রবর্তী (২২) ও কুমিল্লার বড়রা থানার ইকবাল হোসেনকে (৪৫) আসামী করে বুধবার (২৭ অক্টোবর) ফকিরহাট থানায় একটি মামলা করেন।

এক পর্যায়ে বাগেরহাটের ডিবি পুলিশ ও ডিএসবি পুলিশ বুধবার রাতে বরিশালে অভিযান চালিয়ে স্বপন সিংহকে গ্রেফতার করে।

স্বপন সিং নিজেকে ঢাবির অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক পরিচয়ে এবং আইজিপির বন্ধু ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর শ্যালক পরিচয়ে যুথীকা রানী শীলের সাথে চুক্তি করে বলে বাদী বলেন।

প্রতারকদের কাছ থেকে পুলিশ হেডকোয়াটারের আইপির সীল, ১০ লাখ টাকার একটি চেক ও শুধু স্বাক্ষর করা ১০০ টাকার নন জুডিশিয়াল তিনটি সাদা স্টাম্প উদ্ধার করা হয়।

প্রেস ব্রিফিং এ পুলিশ সুপার আরো বলেন, ৭ নভেম্বর বাগেরহাটে পুলিশ কনস্টেবলে নিয়োগ হবে। স্বচ্ছ ও নিরপেক্ষ নিয়োগে কেউ কোনো প্রতারণা করলে আমাদের চৌকস পুলিশ সদস্যরা তা প্রতিরোধ করবে।

এভাবে কেউ যেনো প্রতারিত না হন সেদিকে সজাগ থাকবেন।