কেশবপুরে গভীর রাতে ইজিবাইক চুরি 

Admin

অক্টোবর ০২ ২০২১, ১১:০৫

বেত্রাবতী ডেস্ক।।কেশবপুরের পাঁজিয়া ইউনিয়নের সাতাইশকাটি গ্রামে। রাতের বেলায় বসতঘরের সামনে আয় রোজগারের একমাত্র সম্বল ব্যাটারি চালিত ইজিবাইক রেখে ঘুমিয়ে ছিলেন আলী হাসান নামে এক যুবক। সকালে ঘুম থেকে উঠে দেখেন তার ইজিবাইকটি দুর্বৃত্তরা নিয়ে গেছেন।

সমিতির টাকা দিয়ে কেনা ইজিবাইকটি চুরি হয়ে যাওয়ায় একপ্রকার পাগলপ্রায় হয়ে গেছেন তিনি। ঘুরছেন পথে পথে।

ঘটনা উল্লেখ করে শুক্রবার সকালে থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন তিনি।

অভিযোগ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, এক বছর আগে ৪টি সমিতি থেকে সংসারে সচ্ছলতা ফেরাতে ইজিবাইক কেনেন উপজেলার সাতাইশ কাটি গ্রামের মৃত কেসমত মোড়লের ছেলে আলী হাসান । ইজিবাইকটি তিনি নিজেই ভাড়ায় চালাতেন।

গত বুধবার রাতে বসত ঘরের উঠানে ইজিবাইক রেখে তিনি এবং পরিবারের সদস্যরা ঘুমাতে যান।

বৃহস্পতিবার ভোরে ঘুম থেকে উঠে জানালা দিয়ে তাকিয়ে দেখেন উঠানে তার ইজিবাইকটি নেই। ওই সময় আলী হাসানের স্ত্রী ঘরের দরজা খুলতে গেলে দেখেন বাইরে থেকে দরজার সিটকিনি দেওয়া। তাদের ডাকাডাকিতে প্রতিবেশিরা এগিয়ে এসে দরজা খুলে দেন।

আলী হাসান কান্নাজড়িত কণ্ঠে বলেন, সমিতির টাকা দিয়ে ইজিবাইকটি কিনেছিলাম। ইজিবাইক ভাড়ায় চালিয়ে আমার সংসার চলতো। এখনও কিস্তির টাকাও শোধ করতে পারি নাই। ঘরে স্ত্রী ৮ মাসের অন্তঃসত্ত্বা। বসতভিটা ছাড়া জমি জায়গাও নেই। ইজিবাইকটি চুরি হয়ে আমার অনেক বড় ক্ষতি হয়ে গেলো। চুরি হওয়া ইজিবাইকটির খোঁজে এখন পথে পথে ঘুরছি।

এ ব্যাপারে পাঁজিয়া ইউনিয়নের বিট পুলিশিং কর্মকর্তা উপপরিদর্শক তাপস কুমার রায় বলেন, ইজিবাইক চুরির ঘটনায় অভিযোগ পেয়ে তদন্ত চলছে।